15995401_10202495945357408_1623199435_n

যুবরাজের মৃত্যু নেই

রং তুলি

তোমায় চিনেছি বলে আগুনে পুড়ে

আমি এখন নক্ষত্রের আকাশ।

আমার শরীর স্বর্গের মিনার ছুঁয়ে

থমকে আছে।

যখন আমি মাটির পুতুল ছিলাম

অচেনা পৃথিবীতে একটি বসন্তের শব্দ

আমার বুকে ঢেউ তুলেছিলো।

আমার ঘুমন্ত মনে শব্দরা সুন্দর এনে

কখন আমায় জাগিয়েছে সে কি আমি জানি?

যখন জাগলাম তখন আমি সবুজের ঢেউ,

এলোমেলো হাওয়া আর জ্যোৎস্নার রাত্রিতে

আলোর ফুলঝুড়ি খুলে একটি প্রজাপতি।

 

একদিন দিগন্তের ভেতর

নীলিমার সমুদ্রে

কাকে যেনো দেখেছিলাম,

বড্ড চেনা চেনা

সেই বসন্তে রুক্ষতা ছিঁড়ে

সে ছিলো আমার শব্দের মিছিল।

সে ছিলো আমার চিরো সুন্দর।

কত শব্দঋণে ঋণী হয়ে

তার দুচোখে করেছি সমুদ্রমন্থন।

সে আরেক নীরব গল্প।

 

গল্পরাও একদিন আগুন জ্বেলেছে ঢেড়।

অতল আগুনে পুড়ে এ হৃদয় এখন

নক্ষত্রের আকাশ।

কারন আমি তাকে ভালোবাসি।

এটাই সত্যি, আর সব মিথ্যে।

এটা কি আর আমি বলি?

আমার মন বলে,

আর পুড়ে পুড়ে ছাই হয়।

তাইতো তোমার চোখ সমুদ্র ছুঁয়ে ঐ নীলাকাশ

আর আমি নক্ষত্রের মিছিলে একটি সুপারনোভা।

ভস্মধোঁয়ায় পাক খেয়ে হারিয়ে যাই মহাশূন্যে,

এভাবে ভালোবেসে ধ্বংস হয়ে যাই বলে

তোমার কখনো মৃত্যু নেই যুবরাজ।

Leave a Reply

  • (not be published)